Main Menu

নতুন উদ্ভাবন! এবার শর্শদীতে কালভার্ট নির্মাণে বাঁশ ও কলাগাছ

উন্নত জাতের হাইব্রিড বাঁশ ও উন্নত জাতের কলাগাছ দিয়ে উন্নত প্রযুক্তিতে কালভার্টটি নির্মাণ করা হয়েছে: ইউপি চেয়ারম্যান জানে আলম। ফেনীর শর্শদীতে কালভার্ট নির্মাণে এবার রডের পরিবর্তে বাঁশ ও কলাগাছ ব্যবহার করা হয়েছে। ফেনী সদর উপজেলার শর্শদী ইউনিয়নের শর্শদী গ্রামে ডা. রফিকের বাড়ির সড়কে ইউনিয়ন পরিষদের অর্থায়নে নির্মাণ করা হয়েছে সড়ক যোগাযোগের এ কালভার্টটি।

কালভার্টটিতে নামেমাত্র রড দিয়ে তার পাশাপাশি ‘উন্নত জাতের’ বাঁশ ও কলাগাছ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া ব্যবহার হয়েছে নিম্নমানের ইট-সুরকি ও খোয়া ব্যবহার করা হয়েছে। এলাকাবাসীর অভিযোগ, বড় কোন যানবাহন এ কালভার্টটিতে উঠলে সেটি নিশ্চিত ধ্বসে পড়বে। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় বেশ চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

কিছুদিন পূর্বে শর্শদী ইউনিয়নের উত্তরখানে বাড়ির কাছেই মূল রাস্তায় একটি ছোট কালভার্ট ভেঙে যাওয়ার পর ইউনিয়নের লোকজনের যাতায়াতের সুবিধার জন্য ইউপির অর্থায়নে ১২ লাখ টাকা ব্যয়ে কালভার্টটি নির্মাণ করা হয়েছে বলে এলাকাবাসী জানান।

এদিকে চেয়ারম্যান জানান, কালভার্টের কাজটি ইউনিয়ন পরিষদের নয়, ব্যক্তি উদ্যোগে নির্মাণ করা হয়েছে। কিন্তু স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার মোর্শেদ জানান, চেয়ারম্যান নিজেই ইউপি তহবিল থেকে কালভার্টের নির্মাণ কাজ করেছেন।

এ ব্যাপারে ফেনী সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা নাসরিন সুলতানা জানান, তিনি এই ঘটনাটি জেলা প্রশাসককে অবগত করেছেন। ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে কালভার্ট নির্মাণের নামে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার দপ্তরে জমা দিলে তা কোনভাবেই পাশ করা বা গ্রহণ করা হবে না।

তিনি বলেন, ‘ইউনিয়ন পরিষদের তহবিল থেকে যদি কালভার্ট নির্মাণে এই টাকা ব্যয় করা হয়, তাহলে ভবিষ্যতে ইউনিয়ন পরিষদের নামে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় থেকে যে অর্থ বরাদ্দ দেওয়া হবে তা থেকে ঐ টাকা কেটে নেওয়া হবে।’


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT