Main Menu

মৃত্যুর সময়ে মানুষ কি ভাবে! গবেষণায় উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য!

hathuro-20171109162749

মানুষ তার সারা জীবনে যে সত্যটিকে বার বার দেখেও অদেখা করে থাকেন তা হচ্ছে মৃত্যু। একদিন সবাইকেই মারা যেতে হবে এটা জানার পরেও সেটিকে স্বীকার করে নিতে কেন জানি কষ্ট হয় আমাদের। কিন্তু তারপরেও কিছু প্রশ্ন রয়েই যায়।

একটি জীবনের সব গল্প বা কাহিনীর শেষ হয় মৃত্যু দিয়ে। সব কিছু ফেলে চলে যেতে হয় না ফেরার রাজ্যে। জীবনের কোন অর্জনই তার উপকারে আসবে না। তাই স্বাভাবিকভাবেই যে কারো মনেই আক্ষেপ জন্মাবে। জীবন ক্ষণস্থায়ী। আর তা নিয়েই মানুষের কাছে একটি প্রশ্ন থেকেই যায় যে, ‘জীবন এত ছোট কেন?’ কিন্তু মানুষ যখন মৃত্যুর মুখোমুখি অবস্থান করে তখন কি আদৌ এই চিন্তাগুলো তার মাথায় আসে কিনা তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। তাই সম্প্রতি এ বিষয়ে এক গবেষণার মাধ্যমে এর সঠিক চিত্র উঠে এসেছে।

মৃত্যুর পর কি ঘটে তা নিয়ে যেমন মানুষের কৌতুহলের শেষ নেই তেমনই মৃত্যুর সময় একজন ব্যক্তি কি ভাবেন তা জানা আগ্রহের কমতি নেই। আর এই আগ্রহ আর কৌতুহলের অবসান ঘটাতেই মাঠে নামেন একদল বিজ্ঞানী। দীর্ঘদিনের গবেষণার পর তাদের গবেষণায় উঠে এসেছে এমন কিছু চাঞ্চল্যকর তথ্য যা শুনলে যে কেউ অবাক হবে।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অফ নর্থ ক্যারোলিনার মনোবিজ্ঞানী কার্ট গ্রেীবং তার সাথে আরো কয়েকজন বিজ্ঞানীর মিলে এ ব্যাপারে গবেষণা করে যা জানতে পেরেছেন, তা সত্যিই বিস্ময়কর। ‘সাইকোলজিক্যাল সায়েন্স’নামের এক জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে এই গবেষণাপত্র। আর এই গবেষণা পত্র প্রকাশের পর পরই ইন্টারনেট সহ সারা পৃথিবীতে হৈ চৈ ফেলে দেয় এই গবেষণার ফলাফল।

বিজ্ঞানী কার্ট ও তার দল তাদের গবেষণা এই বিষয়টা পরিষ্কারভাবে সবার সামনে তুলে ধরতে সক্ষম হয়েছেন। এমনকি এ ব্যাপারে নিজেদেরকে সফল বলেও মনে করেছেন কার্ট ও তাঁর সঙ্গীরা। গবেষণাটি করার জন্য একদল ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীর উপর গবেষণা করেন কার্ট। দীর্ঘদিন ধরে তাদের আবেগ ও অনুভূতি নিয়ে বিভিন্ন ধরনের তথ্য উপাত্ত বিশ্লেষনের পর বিস্ময়কর তথ্যের সন্ধান লাভ করেন তারা।

নিজেদের গবেষণা নিয়ে বলতে গিয়ে কার্ট বলেছেন, ‘মৃত্যুর সামনে দাঁড়িয়ে আমাদের অনুভূতি কেমন হবে, এ নিয়ে ভাবতে গেলেই আমাদের মনের ভিতরে ভিড় করে দুঃখ আর ভয়। কিন্তু ঘটনা হল, মৃত্যু আসন্ন এমতাবস্থায় মানুষ মোটেই অত ভীত ও দুঃখিত থাকে না। কিন্তু যেটা কাজ করে সেটা আরও বেশি আশ্চর্যজনক’

গবেষণাকালীন সময়ে ক্যান্সার রোগে আক্রান্ত তাদের মৃত্যুর আগ মুহূর্তে তার অনুভূতি নিয়ে একটি নোট লিখতে বলা হয়। অনেকের সাথে সাক্ষাৎকারেও উঠে আসে চাঞ্চল্যকর সব তথ্য। গবেষণায় কার্ট ও তার দল দেখেন যে মানুষ সাধারণভাবে তার মৃত্যু নিয়ে অনেক ভয় করলেও বা কাল্পনিক মৃত্যুর কথার ভিতরে যতটা ভয় বা শোক স্থান পেয়েছে সেখানে ঠিক বিপরীতটা ঘটেছে সত্যিকারের মৃত্যুমুখী মানুষদের মনোভাবের ক্ষেত্রে। তাদের ভিতরে তেমন ভয়ের মনোভাব নেই। আশ্চর্যজনকভাবে মৃত্যুর সামনে দাঁড়িয়ে সেসব মানুষ অনেক বেশি পজিটিভ থাকেন। মৃত্যুকে মেনে নিয়েই তারা যে কোন সময়েই নিজের মৃত্যু ঘটাকে খুব সাধারণভাবেই দেখেন তারা।

Share Button







ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT